শুক্রবার, ২০ মে ২০২২, ১২:৫৪ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
কুমিল্লা আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিসের উপপরিচালক নুরুল হুদা স্থানীয় সাংবাদিকের মোবাইল ফোনটি আটক রাখার অভিযোগ কুমিল্লায় একটি বাড়ি থেকে ৬শত পিস ইয়াবাসহ একজন মাদককাবারি আটক কুমিল্লায় কোচিং সেন্টারের শিক্ষার্থীদের ঘুমের ঔষধ খাইয়ে অজ্ঞান করে শারীরিক সর্ম্পক স্থাপন করার অভিযোগে একজন আটক র‍্যাবের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে প্রধান আসামি রাজু নিহতঃ কুমিল্লায় সাংবাদিক মহিউদ্দিন সরকার নাঈমের হত্যা মামলার আসামি ঈদকে সামনে রেখে কিশোর গ্যাংয়ের সদস্যরা বেপরোয়া ভাবে নগরীর বিভিন্ন স্থানে ছিনতাইয়ের অভিযোগ কুমিল্লায় গাঁজাসহ এক মাদক ব্যবসায়ী আটক কুমিল্লায় পৃথক র‌্যাবের অভিযানে ৩ মাদক ব্যবসায়ী সাথে ৬ শত ফেন্সিডিল উদ্ধার কুমিল্লার ধুর্মপুর রেলওয়ে এলাকায় একপক্ষের হামলায় রবিন আহত কুমিল্লায় ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হামলা-ভাংচুর ও লুটপাট কুমিল্লায় মাদক ব্যবসায়ী আবু জাফর গ্রেফতার
নোটিশ :

কুমিল্লা পিবিআই এর তদন্তে মাজেদা’র হত্যাকারি রনি গ্রেফতার

সাইফুল ইসলাম শিশির, কুমিল্লাঃ

দেবিদ্বার উপজেলার ফতেহাবাদ গ্রামের সরকার বাড়িতে পা বাঁধা ও কাদাযুক্ত মাজেদা বেগম(৬০)’ মরাদেহু উদ্ধার করে দেবিদ্বার থানার পুলিশ। গত ৭ সেপ্টেম্বর হত্যাকান্ডের ঘটনাটি ঘটে। এরপর থেকে জেলা পুলিশ হত্যা রহস্যের জট খুলেতে কুমিল্লা পিবিআইকে মামলাটি গত ২০ সেপ্টেম্বর তদন্তের স্বার্থে স্ব-উদ্যোগে গ্রহনের ৭ দিনের মধ্যে কুমিল্লা পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই) তদন্তে খুনীদের সনাক্ত সহ প্রধান আসামী রনিকে (২২) গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়েছে। তার দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে উদ্ধার করা হয়েছে লুট হওয়া স্বর্ণালংকারও।মঙ্গলবার (২৮ সেপ্টেম্বর) দুপুরে কুমিল্লা পিবিআই কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এই হত্যাকান্ডের বিস্তারিত জানিয়েছেন পুলিশ সুপার মোঃ মিজানুর রহমান।

এ সময় মামলার তদন্ত কর্মকর্তা পিবিআই কুমিল্লার পুলিশ পরিদর্শক মো.তৌহিদুর রহমান ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন পরিদর্শক আবদুল্লাহ আল মাহফুজ, মোঃ মতিউর রহমান সহ অন্যান্য কর্মকর্তাগন।

পুলিশ সুপার মোঃ মিজানুর রহমান বলেন, এই মামলাটি ছিলো একেবারেই ক্লু-লেস। আমাদের পিবিআই প্রধান ডিআইজি বনজ কুমার মজুমদার স্যারের দিকনির্দেশনায় মাজেদা হত্যার রহস্য উদঘাটনে তদন্ত শুরু করি।মামলার তদন্ত শুরুর মাত্র সাত দিনের মধ্যে সোমবার বিকেলে আধুনিক প্রযুক্তির মাধ্যমে হত্যায় জড়িত জেলার ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলার ছাতিয়ানি গ্রামের মিজানের ছেলে মোঃ রনিকে (২২) গ্রেপ্তার করি। এরপর প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে সে পুরো হত্যাকান্ডের কথা স্বীকার করে বর্ননা দেয়। পরে তার দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে লুট হওয়া স্বর্ণের কানের দুল উদ্ধার করি।জিজ্ঞাসাবাদে রনি পিবিআইকে জানিয়েছে, তারা তিনজন মিলে এই হত্যাকান্ডের ঘটনা ঘটিয়েছে। তাদের উদ্দেশ্য ছিলো ওই মহিলার জমি বিক্রির টাকা লুট করা। কিন্তু ঘরে কোন টাকা ছিলো না। আর তারা অনেকগুলো গহনা লুট করলেও কানের দুল ছাড়া সব ছিলো ইমিটেশন। কানের দুল সাড়ে ৮ হাজার টাকায় বিক্রি করে তারা।এর মধ্যে রনি ভাগ পায় ২হাজার ৬’শ টাকা। বাকিটাকা অপর দু’জন ভাগ করে নেয়। হত্যার সময় মাজেদা নিজেকে বাঁচাতে আপ্রাণ চেষ্টা করেছেন। তিনি ঘাতক রনির আঙ্গুলে কামড় দিয়েছেন। রনির আঙ্গুলে সেই দাগও পাওয়া গেছে।পুলিশ সুপার মোঃ মিজানুর রহমান আরও বলেন, মামলার অপর দুই আসামিকে গ্রেপ্তারে আমাদের অভিযান অব্যাহত রয়েছে। গ্রেপ্তারকৃত রনিকে মঙ্গলবার দুপুরে কুমিল্লার আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে। তদন্ত শেষেদ্রুত আদালতে অভিযোগপত্র (চার্জশীট) দাখিল করা হবে বলে জানিয়েছেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  



ফেসবুকে আমরা